বুধবার, ১০ অগাস্ট ২০২২ | ২৬ শ্রাবণ ১৪২৯

প্রতি উপজেলায় ১০০ শয্যার হাসপাতাল হবে: স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী



দেশের প্রতিটি উপজেলায় ১০০ শয্যার হাসপাতাল  করা হবে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান।

শুক্রবার জাতীয় প্রেসক্লাবের মাওলানা আকরাম খাঁ হলে অনুষ্ঠিত জামালপুর সাংবাদিক ফোরাম-ঢাকার প্রীতি সম্মিলন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা জানান।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঘোষণা এবং নির্বাচনী ইশতেহার অনুযায়ী বাংলাদেশের প্রতিটি মানুষের দোরগোড়ায় মানসম্মত স্বাস্থ্য ও পুষ্টি সেবা পৌঁছে দিতে দেশের প্রতিটি উপজেলায় একটি করে ১০০ শয্যার হাসপাতাল তৈরি করা হবে।

ডা. মুরাদ হাসান বলেন, প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে দেশ এগিয়ে যাচ্ছে। তারই ধারাবাহিকতায় জামালপুরও এগিয়ে যাবে। জামালপুরে শেখ হাসিনা মেডিকেল কলেজ করা হবে। আমি ২৫০ শয্যার হাসপাতাল করার ঘোষণা দিয়েছি।

জামালপুর জেলার মাদারগঞ্জ উপজেলার ৫০ শয্যাবিশিষ্ট স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ১০০ শয্যায় উন্নীত করা হবে। টেন্ডার হয়ে গেছে। জামালপুর হবে দেশের অন্যতম তিনটি জেলার মধ্যে একটি।

একই অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে সংসদ সদস্য মির্জা আজম বলেন, জামালপুরে ৫০টির বেশি উন্নয়ন প্রকল্পের কাজ হাতে নেওয়া হয়েছে। যার ১০ শতাংশও দৃশ্যমান হয়নি, শুধুমাত্র স্থানীয় জেলা প্রশাসনের অদক্ষতার কারণে।

এই বিষয়গুলো গণমাধ্যমে তুলে ধরার জন্য জামালপুর সাংবাদিক ফোরামের কাছে তিনি আহ্বান জানান। তিনি বলেন, দেশের প্রতিটি বিভাগে একটি বা একাধিক বিমান বন্দর থাকলেও, ময়মনসিংহ বিভাগে কোনো বিমান বন্দর নেই। আমরা আমাদের বিভাগে একটি বিমানবন্দর চাই।

প্রীতি সম্মিলন অনুষ্ঠানের আয়োজন করে ঢাকায় জামালপুর সাংবাদিক ফোরাম।

ফোরামের সভাপতি আবু সাঈদের সভাপতিত্বে এতো আরও বক্তব্য রাখেন সংসদ সদস্য ইঞ্জিনিয়ার মোশারফ হোসেন, বিটিআরসির সভাপতি জহিরুল হক, ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি মোল্লা জালাল, প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ফরিদা ইয়াসমিনসহ আরও অনেকে।

সংবাদটি শেয়ার করুন